কুমিল্লায় যাত্রীবাহী বাসচাপায় ৩ জনের মৃত্যু,আহত ৪

কুমিল্লা-যাত্রীবাহী-বাসচাপায়-মৃত্যু

সারাদেশ ডেস্ক : ঢাকা থেকে বোনকে ডাক্তার দেখিয়ে বাড়ি ফেরার পথে কুমিল্লায় যাত্রীবাহী বাসের চাপায় ভাই-বোনসহ ৩ জন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় অটোরিকশা চালকসহ আহত হয়েছে আরও ৪ জন।

শুক্রবার (২৬ মে) দুপুর ১টার দিকে ঢাকা-চাঁদপুর আঞ্চলিক সড়কের দাউদকান্দি উপজেলার কবিচন্দ্রদি এলাকায় এই দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন, দাউদকান্দি উপজেলার কাউয়াদি গ্রামের আল আমিন (৩৬), তার বড় বোন একই উপজেলার ভবানীপুর গ্রামের মৃত আনু মিয়ার স্ত্রী সালেহা বেগম (৪৬) ও চাঁদপুরের আফারকান্দা গ্রামের রোহানা আক্তার (৩২)।

আহতরা হলেন, অটোরিকশা চালক দাউদকান্দির তিনপাড়া গ্রামের শান্ত মিয়া, আফারকান্দা গ্রামের বাসিন্দা নাজমুল হাসান, তার স্ত্রী রীনা আক্তার, শিশু নুসরাত ও একই গ্রামের রোকসানা আক্তার।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, চাঁদপুরের কচুয়া উপজেলার রহিমানগর থেকে জৈনপুরী পরিবহন নামের একটি বাস ঢাকার দিকে যাচ্ছিল। বাসটি দাউদকান্দির কবিচন্দ্রদি এলাকায় আসার পর বিপরীত দিক থেকে আসা একটি সিএনজিচালিত অটোরিকশাকে চাপা দেয়।

পরে আহতদের উদ্ধার করে গৌরীপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক আপন ভাই-বোনসহ তিনজনকে মৃত ঘোষণা করে। দুর্ঘটনায় অটোরিকশাচালকসহ আহত ৪ জনকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

নিহতের স্বজনরা জানান, আল আমিন তার বোনকে ঢাকায় চিকিৎসক দেখাতে নিয়ে গিয়েছিলেন। দুপুরে তারা ঢাকা থেকে বাসে গৌরীপুর আসার পর সিএনজিচালিত অটোরিকশাযোগে বাড়ি ফিরছিলেন।

দাউদকান্দি মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আলমগীর হোসেন ভূঁইয়া বলেন, বাসটিকে জব্দ করা হয়েছে। তবে বাসের চালক ও হেলপার পালিয়ে গেছেন। নিহতদের মরদেহ তাদের স্বজনদের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

ডিখ/প্রিন্স