দেশে করোনায় আরও ২০৩ মৃত্যু, শনাক্তে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ১২,১৯৮

দেশে-করোনা-শনাক্ত-মৃত্যু

দেশের খবর,জাতীয়।। দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় আক্রান্ত হয়ে আরও ২০৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। আগের দিনের তুলনায় মৃত্যু কিছুটা কমেছে। আগের দিন ১২ জুলাই একদিনে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ২২০ জন মারা গিয়েছিলেন করোনা সংক্রমণ নিয়ে।

তারও আগের দিন গত পরশু রোববার (১১ জুলাই) একদিনে সর্বোচ্চ ২৩০ জনের মৃত্যু হয়েছিলো প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে। এ নিয়ে টানা ৩ দিন দুই শতাধিক মানুষের মৃত্যু হলো এই ভাইরাসে। দেশে এ ভাইরাসের বিষে মোট মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাড়াল ১৬ হাজার ৮৪২ জন।

এদিকে, গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ১২ হাজার ১৯৮ জনের শরীরে করোনা সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে। গতকাল সোমবারই (১২ জুলাই) একদিনে ১৩ হজার ৭৬৮ জন শনাক্তের রেকর্ড হয়েছিল।

এরপর গত ২৪ ঘণ্টার শনাক্ত সংখ্যাই দেশের ইতিহাসে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ। মোট শনাক্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ১০ লাখ ৪৭ হাজার ১৫৫ জনে।

আজ মঙ্গলবার (১৩ জুলাই) স্বাস্থ্য অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

স্বাস্থ্য অধিদফতরের বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, ২৪ ঘণ্টায় নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে ৪৩ হাজার ৬৩১ জনের। পরীক্ষা করা হয়েছে ৪১ হাজার ৭৫৫টি। নমুনা পরীক্ষার তুলনায় শনাক্তের হার ২৯ দশমিক ২১ শতাংশ। দেশে এ পর্যন্ত মোট নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ৭০ লাখ ৫৬ হাজার ৯৮৯টি। মোট পরীক্ষার তুলনায় শনাক্তের হার ১৪ দশমিক ৮৪ শতাংশ।

গত ২৪ ঘণ্টায় যারা মারা গেছেন তাদের মধ্যে পুরুষ ১৩২ জন, নারী ৭১ জন। তাদের ১৪ জন বাসা ও ১৮৯ জন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা গেছেন। একজনকে মৃত অবস্থায় হাসপাতালে নেওয়া হয়। এ পর্যন্ত ভাইরাসটিতে মোট মারা যাওয়াদের মধ্যে পুরুষ ১১ হাজার ৭৮২ জন এবং নারী ৫ হাজার ৬০ জন।

২৪ ঘণ্টায় করোনা থেকে সুস্থ হয়েছেন ৭ হাজার ৬৪৬ জন। এ পর্যন্ত মোট সুস্থ হয়েছেন ৮ লাখ ৮৯ জন ১৬৭ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় মারা যাওয়াদের মধ্যে ঢাকা বিভাগেরই ৬১ জন। এছাড়া খুলনায় ৫৩, চট্টগ্রামে ৩০, রাজশাহীতে ২৭, বরিশালে ৫, সিলেটে ৫, রংপুরে ১৫ এবং ময়মনসিংহে ৭ জন মারা গেছেন।

বয়সভিত্তিক বিশ্লেষণে দেখা গেছে, গত ২৪ ঘণ্টায় মারা যাওয়াদের মধ্যে ১১৮ জনের বয়স ৬০ বছরের বেশি। এছাড়া ৫১ থেকে ৬০ বছরের ৩৯, ৪১ থেকে ৫০ বছরের ২৮, ৩১ থেকে ৪০ বছরের ১২ এবং ২১ থেকে ৩০ বছরের ৬ জন রয়েছেন।

ডিখ/প্রিন্স